Nikola Tesla আধুনিক বিজ্ঞান ও অলোকিত পৃথিবীর রূপকার

Nikola Tesla : এই কাহিনি হলো সেই রহস্যময় বিজ্ঞানীর ।

 

আমি ভাবতাম Thomas Alva Edison সেই বিজ্ঞানী যিনি পুরো পৃথিবী আলোয় আলোকিত করেছিলো , কিন্তু আমি ভুল ছিলাম ।

আপনার বাড়ি, স্কুলকলেজ , শপিংমল, আধুনিক সেচব্যবস্থা, কর্মক্ষেত্রে অত্যাবশকীয় প্রয়োজনিয় বিদ্যুৎ । আধুনিক জীবনযাত্রার যেইসব প্রয়োজনীয়  বিনোদনের প্রধান বস্তূ  যাহলো

  • Mobile
  • Computer
  • Internet

আপনি সেই সময়ের কথা কল্পনা করুন যা আমরা ১৫০ বছর আগে জীবনযাপন করতাম । সূর্য ডোবার সাথে সাথে চারিদিকে অন্ধকারের সাম্রাজ্য ছেয়ে যেত আমাদের সব কাজ থেমে যেতো । আমরা লন্ঠনের আলোতে চারিদিক মাত্র কিছুটা আলোকিত করতে পারতাম । লোক মশাল জ্বালিয়া রাতে পথচলতো ও পরবর্তি সকালের অপেক্ষা করতো ।

সাল 1856  July 10 দূর্যোগের রাতে  Smiljan গ্রাম যা মধ্য ইউরোপ Croatia দেশ জন্ম হলো এমন এক সন্তানের যে পরবর্তীতে দুনিয়া কে তার আবিস্কৃত বিদ্যুৎ এর আলোয় আলোকিত করেছিল যার নাম Nikola Tesla । এই কাহিনি হলো সেই রহস্যময় বিজ্ঞানীর ।

টেসলার পিতা MilutinTesla, গ্রামের Serbian Orthodox Church এক বিস্টবা পাদ্রীছিল । মা dukaTesla একপাদ্রীর মেয়েছিল, লেখাপড়া নাজানলেও অসাধারণ মহিলা ছিলো ।

সময় পেলেই ঘরোয়া ভাঙ্গা নষ্ট জিনিস দিয়ে সুন্দর handcraft বানাতো আপনি মাকে বিভিন্ন উপাদান বানাতে দেখেই টেসলার Electric innovative invention এর প্রেরণা মিলে ।

টেসলা ছোট থেকেই বিভিন্ন ধরণের experimant করতো, যার জন্য আশেপাশের গ্রামে টেসলার নাম চর্চিত হতো । ১৮৭৩ সালে গ্রাজুয়েট পুরা করে ।

 

 

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here